অস্কার ২০২০: কোরিয়ান চলচ্চিত্র ‘প্যারাসাইট’ পেল সেরার মর্যাদা

বিনোদন ডেস্কঃ এবছর অস্কারে সেরার খেতাব পেল দক্ষিণ কোরিয়ার চলচ্চিত্র প্যারাসাইট। এর মাধ্যমে ইংরেজী ব্যতিত অন্য ভাষার কোন চলচ্চিত্র প্রথম বারের মত এই শীর্ষ পুরস্কারটি জিতে নিল।

জুডি চলচ্চিত্রে জুডি গার্ল্যান্ডের ভূমিকায় অভিনয় করে সেরা অভিনেত্রীর পুরষ্কার জিতেছেন রেনে জেলওয়েগার। আর ওয়াকিন ফিনেক্স সেরা অভিনেতা হিসেবে অস্কার জিতেছেন জোকার চলচ্চিত্রের মূল চরিত্রে অভিনয়ের জন্য।

ব্র্যাড পিট এবং লরা ডার্ন যৌথভাবে সেরা পার্শ্ব অভিনেতার পুরস্কার জিতেছেন যথাক্রমে ওয়ান্স আপন এ টাইম ইন হলিউড এবং ম্যারিজ স্টোরিতে অভিনয়ের জন্য ।
সর্বমোট চারটি পুরস্কার জিতেছে প্যারাসাইট। আর স্যার স্যাম মেন্ডেসের ‘১৯১৭’ জিতেছে তিনটি।

তবে প্রথম বিশ্ব যুদ্ধ নিয়ে নির্মিত ‘১৯১৭’ চলচ্চিত্রটি নিয়ে প্রত্যাশার পারদ ছিল সবচেয়ে উঁচু। কিন্তু চলচ্চিত্রটি সবগুলো পুরস্কারই জিতেছে কারিগরি ক্যাটাগরিতে।

বং জুন-হো, প্যারাসাইটের নির্মাতা, একই সাথে সেরা নির্মাতা এবং সেরা মৌলিক চিত্রনাট্যের জন্যও পুরস্কার জিতেছেন।

মূলত প্রচলিত সামাজিক ব্যবস্থাকে ব্যঙ্গ করে চলচ্চিত্রটি নির্মাণ করা হয়েছে। সেখানে দুটি আলাদা শ্রেণীর দুটি পরিবারের মধ্যে তুলনা করা হয়েছে। একটি পরিবার দারিদ্রতার কারণে এক বহুতল ভবনের বেজমেন্ট বা মাটির নিচের তলায় ছোট একটি ফ্ল্যাটে বাস করে। অন্যটি পরিবারটি ধনী যারা বড় একটি বিলাসবহুল বাড়িতে বাস করে।

আর এই চলচ্চিত্রটি একাডেমি পুরস্কারের ৯২ বছরের ইতিহাস ভেঙে দিয়ে জিতে নিয়েছে সেরা চলচ্চিত্রের তকমা।

সেরা চলচ্চিত্রের পুরস্কার সংগ্রহ করেন প্রযোজক কোয়াক সিন-অ্যা। তিনি বলেন, “আমি আসলে বাকরুদ্ধ। আমরা কখনো ভাবিনি যে এটা সম্ভব। আমার মনে হচ্ছে যে, ইতিহাসের যথোচিত ঘটনাটি এখন ঘটছে।”

এ বছর সবচেয়ে বেশি পুরস্কার যারা জিতেছেন
•প্যারাসাইট – ৪টি
•১৯১৭ – ৩টি
•ফোর্ডস ভার্সেস ফেরারি – ২টি
•জোকার – ২টি
•ওয়ান্স আপন এ টাইম ইন হলিউড – ২টি

অভিনয়ের জীবনে নিজের ক্যারিয়ারের প্রথম অস্কার জিতেছেন ব্র‍্যাড পিট। কুয়েন্টিন টারান্টিনোর ‘ওয়ান্স আপন এ টাইম ইন হলিউড’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করে সেরা পার্শ্ব অভিনেতার পুরস্কার জিতেছেন তিনি।

এবার অস্কারের আসরে তিনিই প্রথম পুরস্কার জয়ী এবং তার বক্তব্যে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসন বিচার প্রক্রিয়া নিয়ে সরাসরি প্রশ্ন তোলেন তিনি।

তিনি উদ্ধৃতি দিয়ে বলেন যে, রিপাবলিকান সিনেটররা সাবেক জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জন বল্টনসহ আরো অনেকে যাতে সাক্ষী দিতে না পারেন তার পক্ষে ভোট দিয়েছেন।

“তারা আমাকে বলেছে যে, আমি এখানে বক্তব্য দেয়ার জন্য ৪৫ সেকেন্ড সময় পাবো, যা জন বল্টনকে কথা বলতে দেয়ার জন্য নির্ধারিত চেয়ে ৪৫ সেকেন্ড বেশি,” তিনি বলেন। তিনি আরো বলেন, “আমি ভাবছি যে কুয়েন্টিন হয়তো এটি নিয়ে একটি চলচ্চিত্র বানাবে, যেখানে প্রাপ্তবয়স্করা শেষমেশ ঠিক কাজটি করবে।”

এরপর রাজনৈতিক প্রসঙ্গ থেকে সরে এসে নিজের জীবন নিয়ে কথা বলেন ৫৬ বছর বয়সী এই অভিনেতা। তিনি সহ-অভিনেতা লিওনার্দো ডিক্যাপ্রির প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন এবং হলিউডে তার তারকা খ্যাতি পাওয়া নিয়ে কথা বলেন।

আবেগাপ্লুত হয়ে তিনি বলেন, “আমি পেছনে ফিরে তাকাতে পছন্দ করি না, কিন্তু আজকের ঘটনা আমাকে সেটা করতেই বাধ্য করছে”।

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন