ঢাকা ০৮:০৯ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞপ্তি :
সারাদেশের জেলা উপোজেলা পর্যায়ে দৈনিক স্বতঃকণ্ঠে সংবাদকর্মী নিয়োগ চলছে । আগ্রহী প্রার্থীগন জীবন বৃত্তান্ত ইমেইল করুন shatakantha.info@gmail.com

আত্মসাতের সংবাদ প্রকাশের পরে কিছু মালামাল ফেরত সহ প্রধান শিক্ষককে সভাপতির হুমকি প্রদর্শন

বার্তাকক্ষ
  • প্রকাশিত সময় ১১:৪৫:৫৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১১ মার্চ ২০২০
  • / 13

মাদারীপুর প্রতিনিধিঃ চরমুগরিয়া ২নং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মালামাল আত্মসাতের সংবাদ প্রকাশের পরে কিছু মালামাল ফেরত সহ প্রধান শিক্ষককে সভাপতির হুমকি প্রদর্শনের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

চরমুগরিয়া ২নং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আইয়ুব খান ও ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক অলকা রায় কতৃক বিদ্যালয়ের মালামাল আত্মসাতের ঘটনাটি বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত হওয়ার পরে ৯ মার্চ সোমবান রাতে ০৪টি হাই বেঞ্চ, ১৯ টি সিট বেঞ্চ, ১ টি টেবিল, বিভিন্ন রঙ্গের ১০ টি পুরাতন ফ্যান ও কিছু অকেজো বেঞ্চ রেখে গেলেও এখনো উদ্ধার হয়নি মেহগনি কাঠের ০৬ টি দরজা ও আত্মসাৎকৃত অর্থ সহ অন্যান্য মালামাল।

উক্ত বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ফারহানা আক্তার সকালে স্কুলে এসে মালামাল দেখতে পেয়ে উপজেলা প্রাথমিক সহকারী শিক্ষা অফিসার মোকলেছুর রহমানকে তা অবহিত করেন।

আগামীকাল মাসিক প্রতিবেদনে উক্ত মালামাল গুলোর উল্লেখ করা হবে কিনা এবং উল্লেখ করলে পরবর্তীতে কোন সমস্যা হবে কিনা সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন মাসিক প্রদিবেদনে উল্লেখ করে দেওয়া হোক। আমি মৌখিক ভাবে জানলাম এটাই যথেষ্ট।

এ ব্যাপারে ১১ মার্চ বুধবার উপজেলা শিক্ষা অফিসার বরাবর লিখিত ভাবে জানানো হয়েছে। এছাড়াও ১০ মার্চ মঙ্গল্বার সকাল ১১ টার দিকে উক্ত বিদ্যালয়ের সভাপতি আইয়ুব খান কিছু বখাটে ছেলে ও মহিলাদের নিয়ে প্রধান শিক্ষককে বদলি করে দেওয়া সহ নানা হুমকি প্রদর্শন করেন এবং ভবিষ্যতে বড় ধরনের ক্ষতি করারও হুমকি প্রদর্শন করেন ।

এ ব্যাপারে মাদারীপুর মডেল থানায় একটি জিডি করা হয়েছে। (জিডি নং– ৪৮৯, তারিখঃ ১১.০৩.২০২০খ্রিঃ।)

এমতাবস্থায় প্রধান শিক্ষক ফারহানা আক্তার এখন নিরাপত্তাহীনতা ও বদলি আতঙ্কে রয়েছে।

আত্মসাতের সংবাদ প্রকাশের পরে কিছু মালামাল ফেরত সহ প্রধান শিক্ষককে সভাপতির হুমকি প্রদর্শন

প্রকাশিত সময় ১১:৪৫:৫৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১১ মার্চ ২০২০

মাদারীপুর প্রতিনিধিঃ চরমুগরিয়া ২নং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মালামাল আত্মসাতের সংবাদ প্রকাশের পরে কিছু মালামাল ফেরত সহ প্রধান শিক্ষককে সভাপতির হুমকি প্রদর্শনের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

চরমুগরিয়া ২নং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আইয়ুব খান ও ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক অলকা রায় কতৃক বিদ্যালয়ের মালামাল আত্মসাতের ঘটনাটি বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত হওয়ার পরে ৯ মার্চ সোমবান রাতে ০৪টি হাই বেঞ্চ, ১৯ টি সিট বেঞ্চ, ১ টি টেবিল, বিভিন্ন রঙ্গের ১০ টি পুরাতন ফ্যান ও কিছু অকেজো বেঞ্চ রেখে গেলেও এখনো উদ্ধার হয়নি মেহগনি কাঠের ০৬ টি দরজা ও আত্মসাৎকৃত অর্থ সহ অন্যান্য মালামাল।

উক্ত বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ফারহানা আক্তার সকালে স্কুলে এসে মালামাল দেখতে পেয়ে উপজেলা প্রাথমিক সহকারী শিক্ষা অফিসার মোকলেছুর রহমানকে তা অবহিত করেন।

আগামীকাল মাসিক প্রতিবেদনে উক্ত মালামাল গুলোর উল্লেখ করা হবে কিনা এবং উল্লেখ করলে পরবর্তীতে কোন সমস্যা হবে কিনা সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন মাসিক প্রদিবেদনে উল্লেখ করে দেওয়া হোক। আমি মৌখিক ভাবে জানলাম এটাই যথেষ্ট।

এ ব্যাপারে ১১ মার্চ বুধবার উপজেলা শিক্ষা অফিসার বরাবর লিখিত ভাবে জানানো হয়েছে। এছাড়াও ১০ মার্চ মঙ্গল্বার সকাল ১১ টার দিকে উক্ত বিদ্যালয়ের সভাপতি আইয়ুব খান কিছু বখাটে ছেলে ও মহিলাদের নিয়ে প্রধান শিক্ষককে বদলি করে দেওয়া সহ নানা হুমকি প্রদর্শন করেন এবং ভবিষ্যতে বড় ধরনের ক্ষতি করারও হুমকি প্রদর্শন করেন ।

এ ব্যাপারে মাদারীপুর মডেল থানায় একটি জিডি করা হয়েছে। (জিডি নং– ৪৮৯, তারিখঃ ১১.০৩.২০২০খ্রিঃ।)

এমতাবস্থায় প্রধান শিক্ষক ফারহানা আক্তার এখন নিরাপত্তাহীনতা ও বদলি আতঙ্কে রয়েছে।