ঢাকা ০৫:০৩ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞপ্তি :
সারাদেশের জেলা উপোজেলা পর্যায়ে দৈনিক স্বতঃকণ্ঠে সংবাদকর্মী নিয়োগ চলছে । আগ্রহী প্রার্থীগন জীবন বৃত্তান্ত ইমেইল করুন shatakantha.info@gmail.com

নাগরিকদের মুখোমুখি ভাঙ্গুড়ার মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল

বার্তাকক্ষ
  • প্রকাশিত সময় ০৫:৫৬:২১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ ডিসেম্বর ২০১৯
  • / 15

ভাঙ্গুড়া(পাবনা)প্রতিনিধিঃপাবনার ভাঙ্গুড়া পৌর সভার মেয়রের দায়িত্ব গ্রহণ ও পৌর উন্নয়নের ৪ বছর পূর্তি এবং ৫ বছরে পর্দাপণ উপলক্ষ্যে পৌরবাসীর উন্নয়ন ও সমস্যা নিয়ে মুখোমুখি অনুষ্ঠানে নাগরিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল।

গতকাল সোমবার রাতে শরৎনগর সিনিয়র ফজিল মাদ্রাসা মাঠে শামীম, খাইরুল,আলীম ও শহীদুল আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে নাগরিকদের উন্মুক্ত বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র গেলাম হাসনাইন রাসেল বলেন, ‘গত ২০১৫ সালের ৩০ শে ডিসেম্বর পৌর নির্বাচনে বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে যে নৌকা প্রতীক দিয়েছিলেন।

সেই প্রতীকে আপনাদের পবিত্র আমানাত ভোট দিয়ে আমাকে বিজয়ী করেছিলেন। আমিও আমার সর্বশক্তি,জ্ঞান , বিবেক ও মেধা দিয়ে আপনাদের সেই পবিত্র আমানত রক্ষা করার সদা চেষ্টা করে চলেছি।

সেই দিন বিজয়ী হয়ে পৌরসভায় যখন ৮০ থেকে ৯০ লক্ষ টাকা ঋণ ছিল তখন আমি দায়িত্ব নিয়েছিলাম।

দায়িকত্ব নিয়ে পৌর সভার কাউন্সিলদের সাথে নিয়ে শপথ করেছিলাম। আমরা বৃহত্তর জনকল্যাণে নিজেদেরকে উৎসর্গ করব। বৃহত্তর জনগণের কল্যাণ সাধিত হয় সেই সকল কাজকে অগ্রাধিকার দিবো।

সেই লক্ষ্য নিয়েই আমি ও আমার পৌর সভা সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি এবং ৪ বছর ধরে পৌর সভার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ করে চলেছি। ৪ বছরে পৌরসভার সেই ঋণ পরিশোধ করতে সক্ষম হয়েছি।

বর্তমানে পৌর সভার নিজস্ব আয় দিয়ে অনেক উন্নয়ন করা করা সম্ভাব হচ্ছে।’ তিনি আরও বলেন, ‘পাবনা -৩ এর এমপি আলহাজ মোঃ মকবুল হোসেন এর সহযোগিতায় পৌর সদরে অনেক রাস্তা নির্মাণ, ড্রেনেজ ব্যবস্থা তৈরি ,সৌর বিদ্যুৎ স্থাপন, সড়ক বাতি, মাদক নির্মূলে পদক্ষেণ গ্রহণ, জন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে সিসি ক্যামেরা ও ডাস্টবিন স্থাপন করা সহ নানাবিধ উন্নয়নমূলক কাজ করা সম্ভব হয়েছে।

পাশাপাশি আগামি দিনে এই পৌর সভায় শিশুদের বিনোদনের জন্য আরও একটি শিশু পার্ক নির্মাণ,অবশিষ্ঠ কাঁচা রাস্তা গুলি পাকাকরণসহ আরও উন্নয়নমূলক কাজ হবে বলে উপস্থিত জনতাকে তিনি আশ্বাস প্রদান করেন।

৪ বছর পূর্তি ও ৫ বছরে পদার্পণ উপলক্ষ্যে উন্নয়ন শীর্ষক আলোচনায় সাবেক মেয়র আলহাজ ওসমান গণির সভাপত্বিতে এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন,উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আজিদা পারভীন পাখি, শরৎনগর বাণিক সমতির সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আলহাজ ফজলুর রহমান, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি,সাংবাদিকবৃন্দ ও বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ।

এর আগে পৌর মেয়রকে পৌর সভার বিভিন্ন উন্নয়ন ও সমস্যা নিয়ে সাধারণ জনতা প্রশ্ন করলে তিনি তা লিপিবদ্ধ করেন। সবশেষে মেয়র ধর্য্যসহকারে জনতার প্রশ্ন গুলির উত্তর একে একে দেন।

নাগরিকদের মুখোমুখি ভাঙ্গুড়ার মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল

প্রকাশিত সময় ০৫:৫৬:২১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ ডিসেম্বর ২০১৯

ভাঙ্গুড়া(পাবনা)প্রতিনিধিঃপাবনার ভাঙ্গুড়া পৌর সভার মেয়রের দায়িত্ব গ্রহণ ও পৌর উন্নয়নের ৪ বছর পূর্তি এবং ৫ বছরে পর্দাপণ উপলক্ষ্যে পৌরবাসীর উন্নয়ন ও সমস্যা নিয়ে মুখোমুখি অনুষ্ঠানে নাগরিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল।

গতকাল সোমবার রাতে শরৎনগর সিনিয়র ফজিল মাদ্রাসা মাঠে শামীম, খাইরুল,আলীম ও শহীদুল আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে নাগরিকদের উন্মুক্ত বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র গেলাম হাসনাইন রাসেল বলেন, ‘গত ২০১৫ সালের ৩০ শে ডিসেম্বর পৌর নির্বাচনে বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে যে নৌকা প্রতীক দিয়েছিলেন।

সেই প্রতীকে আপনাদের পবিত্র আমানাত ভোট দিয়ে আমাকে বিজয়ী করেছিলেন। আমিও আমার সর্বশক্তি,জ্ঞান , বিবেক ও মেধা দিয়ে আপনাদের সেই পবিত্র আমানত রক্ষা করার সদা চেষ্টা করে চলেছি।

সেই দিন বিজয়ী হয়ে পৌরসভায় যখন ৮০ থেকে ৯০ লক্ষ টাকা ঋণ ছিল তখন আমি দায়িত্ব নিয়েছিলাম।

দায়িকত্ব নিয়ে পৌর সভার কাউন্সিলদের সাথে নিয়ে শপথ করেছিলাম। আমরা বৃহত্তর জনকল্যাণে নিজেদেরকে উৎসর্গ করব। বৃহত্তর জনগণের কল্যাণ সাধিত হয় সেই সকল কাজকে অগ্রাধিকার দিবো।

সেই লক্ষ্য নিয়েই আমি ও আমার পৌর সভা সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি এবং ৪ বছর ধরে পৌর সভার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ করে চলেছি। ৪ বছরে পৌরসভার সেই ঋণ পরিশোধ করতে সক্ষম হয়েছি।

বর্তমানে পৌর সভার নিজস্ব আয় দিয়ে অনেক উন্নয়ন করা করা সম্ভাব হচ্ছে।’ তিনি আরও বলেন, ‘পাবনা -৩ এর এমপি আলহাজ মোঃ মকবুল হোসেন এর সহযোগিতায় পৌর সদরে অনেক রাস্তা নির্মাণ, ড্রেনেজ ব্যবস্থা তৈরি ,সৌর বিদ্যুৎ স্থাপন, সড়ক বাতি, মাদক নির্মূলে পদক্ষেণ গ্রহণ, জন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে সিসি ক্যামেরা ও ডাস্টবিন স্থাপন করা সহ নানাবিধ উন্নয়নমূলক কাজ করা সম্ভব হয়েছে।

পাশাপাশি আগামি দিনে এই পৌর সভায় শিশুদের বিনোদনের জন্য আরও একটি শিশু পার্ক নির্মাণ,অবশিষ্ঠ কাঁচা রাস্তা গুলি পাকাকরণসহ আরও উন্নয়নমূলক কাজ হবে বলে উপস্থিত জনতাকে তিনি আশ্বাস প্রদান করেন।

৪ বছর পূর্তি ও ৫ বছরে পদার্পণ উপলক্ষ্যে উন্নয়ন শীর্ষক আলোচনায় সাবেক মেয়র আলহাজ ওসমান গণির সভাপত্বিতে এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন,উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আজিদা পারভীন পাখি, শরৎনগর বাণিক সমতির সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আলহাজ ফজলুর রহমান, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি,সাংবাদিকবৃন্দ ও বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ।

এর আগে পৌর মেয়রকে পৌর সভার বিভিন্ন উন্নয়ন ও সমস্যা নিয়ে সাধারণ জনতা প্রশ্ন করলে তিনি তা লিপিবদ্ধ করেন। সবশেষে মেয়র ধর্য্যসহকারে জনতার প্রশ্ন গুলির উত্তর একে একে দেন।