নোয়াখালীতে দুই আনসার সদস্যকে ছুরিকাঘাতকারীকে আটক করেছে র‍্যাব-১১

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের ফটকে সিএনজিচালিত অটোরিকশা রাখাকে কেন্দ্র করে হাসপাতালের কর্তব্যরত দুই আনসার সদস্যকে ছুরিকাঘাতকারী মাহফুজুর রহমান খানকে (৩৬) গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের-১১ এর সদস্যরা।

শুক্রবার ২৯ অক্টোবর দিবাগত রাতে বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামর চিওড়া বাজারের সিএনজি স্ট্যান্ডের সামনে থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত মাহফুজুর রহমান খান নোয়াখালী পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ডের কৃষ্ণরামপুর গ্রামের কুদ্দুছ খানের ছেলে।

শনিবার ৩০ অক্টোবর দুপুরে নোয়াখালী প্রেস ক্লাবের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব-১১ সিসিপি ২ এর কোম্পানী কমান্ডার উপ-পরিচালক মেজর মোহাম্মদ সাকিব হোসেন এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি আরো জানান, নোয়াখালী জেরারেল হাসপাতালের কর্তব্যরত দুই আনসার সদস্যদকে ছুরিকাঘাতকারীকে র‌্যাব ১১ এর সিসিপি ২ ও ৩ এর বিশেষ অভিযানে গ্রেফতার করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সে ছুরিকাঘাতে করার কথা স্বীকার করেছে। আসামিকে সুধারাম মডেল থানায় দায়েরকৃত মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তার কাছে হস্তান্তর করা হবে।

উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার ২৬ অক্টোবর বেলা সাড়ে ১১ টায় ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট নেয়াখালী জেলারেল হাসপাতালের ফটকে অটোরিক্সা রাখাকে কেন্দ্র করে কর্তব্যরত দুই আনসার সদস্যকে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায় মাহফুজুর রহমান খান। পরের দিন বুধবার ২৭ অক্টোবর তাকে প্রধান আসামী করে সুধারাম মডেল থানায় মামলা দায়ের করা হয়।

আরও পড়ুনঃ নোয়াখলীর চাটখিলে ভাড়াটিয়া সেজে দুই বছরের শিশু চুরি

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন