পাবনার চাটমোহরের প্রতিবন্ধী অভি পেল হুইল চেয়ার

চাটমোহর পাবনা প্রতিনিধিঃ মানুষ মানুষের জন্য এই মহা মুল্যবান বাক্যটি আবারও প্রমাণ করে দেখালেন পাবনার চাটমোহর পৌরসদরের ছোট শালিখা মহল্লার বাসিন্দা মরহুম আবুল হোসেন মাষ্টারের বড় সন্তান র‌্যাব-৪ এর অধিনায়ক অতিরিক্ত ডিআইজি মোজাম্মেল হক হকের স্ত্রী সুলতানা হক কনা ।

জন্মগত ভাবে মানুষিক ও শারীরিক প্রতিবন্ধী রিমন হোসেন অভি (১৫) হাঁটতে ও ভালভাবে কথা বলতে পারে না। জন্মের পর থেকেই একটি আধাভাঙ্গা কাঠের চেয়ারেই কাটে তার সারাদিনক্ষণ। কৃষক পিতা চিকিৎসায় অনেক অর্থ কড়ি ফুরিয়েছেন কিন্তু ভাল হয়নি অভি।

গত সপ্তাহে ভোরের দর্পণ, চাটমোহর প্রতিনিধি এম এ জিন্নাহ সরেজমিন অভিদের বাড়ি গিয়ে কথা হয় অভি ও তার পরিবারের সাথে। অসহায় অভি ভাঙ্গা ভাঙ্গা কথা বলতে পারে ।

অভি ও তার পরিবারের একটাই আবদার ছিল। সেটা প্রতিবন্ধী সন্তানের জন্য একটি হুইল চেয়ারের। পাড়ার আর চারটে ছেলেমেয়েদের মত অভিও যেন আশে পাশে ঘুরতে পারে।

প্রতিনিধি এম এ জিন্নাহ ঐদিনই তার ফেসবুক ওয়ালে ” শিশু প্রতিবন্ধী অভির দুঃখ সুখের গল্প ” শিরোনামে একটি পোষ্ট দেন। পোষ্টটি আপলোড হওয়ার পরপরই অনেকেই অভির প্রতি দোয়া,সহযোগিতা,সহমর্মিতা জানিয়ে কমেন্ট করেন।

তার মধ্যে নজরে আসে চাটমোহরের কৃতিসন্তান র‌্যাব-৪ এর অধিনায়ক অতিরিক্ত ডিআইজি ও ঢাকাস্থ চাটমোহর উন্নয়ন ফোরামের সভাপতি মোজাম্মেল হকের। তিনি কমেন্টে লেখেন অভির হুইল চেয়ারের দায়িত্ব চাটমোহর উন্নয়ন ফোরাম গ্রহন করল।

সেদিনের পোষ্টটি পরক্ষণেই নজরে আসে তার সহধর্মিনী ( স্ত্রী) সুলতানা হক কনার। তিনি ও সিদ্ধান্ত নেন হুইল চেয়ারটি সে নিজেই কিনে দেবেন। তার এই মহতী সিদ্ধান্ত স্বামীকে জানানোর পর বিষয়টি এই প্রতিবেদক কে অবহিত করেন।

আরও পড়ুনঃ পাবনার সুজানগরে জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহের উদ্বোধন

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন