রাজশাহীর বাঘায় পদ্মার চর এলাকা থেকে এক দৃষ্টি প্রতিবন্ধি যুবকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার

বাঘা উপজেলা প্রতিনিধিঃ শনিবার ২৫\০১\২০২০ইং সকাল ৯ টায় বাঘা থানা পুলিশ মোবাইল ফোনে খবর পেয়ে চর কালিদাসখালী থেকে লাশ উদ্ধার করে।

জাকির হোসেন কালিদাসখালী এলাকার আবদুল খালেক মোল্লার ছেলে।
নিহত জাকির হোসেনেল বাবা আবদুল খালেক মোল্লা জানান, তার ছেলে জাকির হোসেন শুক্রবার রাত সাড়ে ৮ টার দিকে নিজ বাড়ি থেকে পাশের কালিদাসখালী বাজারে ওষুধ আনতে যায়। তারপর থেকে সে আর বাড়ি ফিরে আসেনি। তাকে রাতে বিভিন্ন স্থানে খোঁজ করেও পাওয়া যায়নি। তবে সকালে কালিদাসখালী এলাকার একটি শস্য ক্ষেতে তার লাশ পাওয়া যায়।
চকরাজাপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আজিজুল আযম জানান, জাকিরকে শুক্রবার রাত থেকে খুঁজছে তার পরিবার। অবশেষে শনিবার সকাল ৮ টার দিকে সবজি চাষিরা মাঠে কাজ করতে যাওয়ার সময় শস্য ক্ষেতের মধ্যে তার লাশ পড়ে থাকতে দেখে। পরে খবর পেয়ে এলাকার মানুষের সাথে তিনিও ঘটনা স্থলে যান এবং জাকিরের লাশ চিনতে পারেন। পরে মোবাইল ফোনে বাঘা থানা পুলিশকে খবর দিলে তারা এসে লাশটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যান।

বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নজরুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে সকাল ৯ টায় লাশ উদ্ধার করি। সকালে এ রিপোর্ট লাশ রামেক হাসপাতালের মর্গে প্রেরণের প্রস্তুতি চলছিল।

ওসি আরও জানান, এখন পর্যন্ত হত্যার মুল কারণ খুজে পাওয়া যায়নি। তবে অনেকেই ধারনা করছেন, পুর্ব শত্রুতায় এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটতে পারে। এ বিষয়ে তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে ।

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন